গাইনিকোলজি (স্ত্রীরোগ বিদ্যা) ও মিডওয়াইফারী (ধাত্রী বিদ্যা): পাঠ্যক্রম ও সহায়কগ্রন্থ

ডি.এইচ.এম.এস. (ডিপ্লোমা)কোর্সঃ ৪র্থ বর্ষ:
গাইনিকোলজি বা স্ত্রীরোগ বিদ্যা:-
১। হোমিওপ্যাথিক আরোগ্য কলায় গাইনিকোলজি শিক্ষার আবশ্যকতা এবং স্ত্রীরোগসমূহ ও তাদের চিকিৎসায় এলোপ্যাথিক ও হোমিওপ্যাথিক পার্থক্য।
২। স্ত্রীযৌনাঙ্গের দৈহিক গঠন।
৩। গাইনিকলোজিকেল পরীক্ষা ও হোমিওপ্যাথিক দৃষ্টিভঙ্গিতে রোগীলিপি সংগ্রহ।
৪। ডিম্বক্ষরণ, মাসিক পিউবারটি বা বয়ঃসন্ধি, মনোপজ বা অস্বাভাবিকতা।
৫। মাসিক বা ঋতুস্রাবের গোলযোগ: (ক) ঋতুবদ্ধতা; (খ) গোপন ঋতুস্রাব; (গ) ডিসমেনোরিয়া বা কষ্টকজ; (ঘ) পলিমেনোরিয়া; (ঙ) রজোবাহুল্য; (চ) মেট্রোরোজিয়া; (ছ) ওলিগোমেনোরিয়া বা রজঃস্রাবের অস্বাভাবিক স্বল্পতা; (জ) জরায়ুর কর্মক্ষমতা লোপের দরুন রক্তক্ষরণ; (ঝ) পোষ্টমেনোপজাল ব্লিডিং বা রজঃনিবৃত্তির পরবর্তী রক্তক্ষরণ।
৬। প্রদর ও প্রসব জনিত চুলকানি।
৭। প্যাথলজি অব প্রেগনেন্সি: গর্ভপাত, হাইডাটিসি ফর মোর, এক্টোপয়েক গর্ভাবস্থা।
৮। জেনিটো ইউরিনারী ফিস্টুলা বা জনন মূত্র সংক্রান্ত নালীপথ এবং ইউরিনারী ইনকন্টিনেন্স।
৯। বহিঃস্থ যৌনাঙ্গের রোগসমূহ: প্রসব দ্বারা যৌনরোগ সঙক্রমন, সংক্রোমক যৌন ব্যাধি সমূহ।
১০। সারভিক্সের রোগসমূহ: জরায়ুগ্রীবার প্রদাহ, সাভিকেল ইরোশন (ক্ষয়), পলিপ বা বৃন্তার্বূদ, সারভিক্স, ক্যান্সার বা গ্রীবার ক্ষত।
১১। জরায়ুর রোগসমূহ: জেনিটাল প্রোলাপ্স (নিম্নাবতরণ), ফিক্রুমায়োমা, এনডেমেট্রি ও সিস বা অন্তঃজরায়ু এডিনোমিয়োসিস বা জরায়ু গ্রন্থির অর্বুদ।
১২। ডিম্বাশয় ও ফেলোপিয়ান টিউবের রোগসমূহ: ডিম্বাশয়ের টিউমার, ডিম্বাশয়ের প্রদাহ, জরায়ুনালী ও ডিম্বাশয় প্রদাহ।
১৩। বন্ধ্যাত্ব: কন্ট্রসেপশন বা জন্মশাসন ও ও জন্মনিয়ন্ত্রণ টারমিনেশন অব প্রেগনেন্সী বা গভের পরিনাম।
#সহায়ক গ্রন্থ——-
অবস্টেট্রিকস এন্ড গাইনোকলজি – নূর জাহান ভূঁইয়া
A synopsis of obsetrics and gynaecology – Aleck W. Bourne
Jeffcoate’s Principles of Gynaecology – Sir Norman Jeffcoate
DC Dutta’s Textbook of Gynecology
Dewhurst’s Textbook of Obstetrics and Gynaecology
Core Clinical Cases in Obstetrics and Gynaecology – Khan Khalid,Saeed Gupta, Janesh K, Mires Gary

ধাত্রীবিদ্যা বা প্রসূতিবিদ্যা (মিডওয়াইফারী বা অবসটেট্রিকস):-
১। হোমিওপ্যাথিক নীতিতে ব্যবহারিক ধাত্রীবিদ্যা বা প্রসূতিবিদ্যা প্রয়োগের সুযোগ।
২। স্বাভাবিক গর্ভাবস্থা: (ক) ডিম্বক্ষরণ, মাসিক, গর্ভোৎপাদন; (খ) গর্ভফুল ও ফিটার রক্ত সঞ্চালন; (গ) পরীক্ষা দ্বারা গর্ভাবস্থা নির্ণয়; (ঘ) প্রসবকালীন যত্ন।
৩। স্বাভাবিক প্রসব: (ক) গর্ভবতীর পরীক্ষা ও ডায়গনসিস; (খ) ভ্রুনের অবস্থান ও প্রসব প্রক্রিয়া; (গ) স্বাভাবিক প্রসবের ব্যবস্থাপনা।
৪। প্রসূতাবস্থা: (ক) স্বাভাবিক প্রসূতাবস্থা ও সর্বোত্তম যত্ন; (খ) প্রসবোত্তর কালে প্রসব জনিত জ্বর।
৫। অস্বাভাবিক গর্ভাবস্থা: (ক) গর্ভকালীন অতি বমন; (খ) গর্ভাবস্থায় বিষোদুষ্টতা।
৬।অস্বাভাবিক প্রসব: (ক) প্রসবের প্রতিবন্ধকতা; (খ) অস্বাভাবিক প্রেজেনটেশন, যেমন- অক্সিপিটো পোস্টোরিয়ার, ফেস বা সম্মুখভাগ, কপাল, নিতম্ব, গোল্ডার প্রেজেনটেশন, (গ) বর্হিমনোম্মুখ ও নাভিরজ্বর, নিম্বাবতরন; (ঘ) সিপেলোপেলভিক ডিসপ্রপোরশন বা গর্ভাবস্থায় শিশুর অস্বাভাবিক গঠন; (ঙ) প্রসবাগ্রে রক্তক্ষরণ; (চ) প্রসব পরবর্তী রক্তক্ষরণ; (ছ) গর্ভফুল ও মাত্রিকা ঝিল্লির বিলম্বের প্রসব।
৭। প্রসব সংক্রান্ত অস্ত্রোপচার: (ক) ইনডাকশন অব লেবার বা প্রসবের ইনডাকশন; (খ) বাহ্যিক ও আভ্যন্তরীন ভারসন; (গ) ফরসেপ বা সাঁড়াসি দিয়ে সন্তান প্রসব; (ঘ) ক্রোনিয়েকটমী; (ঙ) ডিকোপিচেশন বা শিরচ্ছেদন; (চ) সিজারন সেকশন বা উদর ছেদ দ্বারা জরায়ু থেকে সন্তান বের করে দেয়া।
৮। নবজাতক: (ক) নবজাতক শিশুর যত্ন; (খ) শিশু খাদ্য; (গ) নবজাতক শিশুর রোগ সমূহ, যেমন- অপূর্ণকাল শিশু, নবজাতকের শ্বাসরোধ, সদ্যোজাত শিশুর জন্ডিস বা ন্যাবা রোগ।

সহায়ক গ্রন্থ——-
অবসটেট্রিকস এন্ড গাইনোকলজি- নূর জাহান ভূঁইয়া
A synopsis of obsetrics and gynaecology – Aleck W. Bourne
Myles Textbook for Midwives
Textbook of DC Dutta’s OBSTETRICS
Dewhurst’s Textbook of Obstetrics and Gynaecology
Core Clinical Cases in Obstetrics and Gynaecology – Khan Khalid, Saeed Gupta, Janesh K, Mires Gary

সংকলক———–
-ডা. এইচ এম আলীমুল হক, আলহক্ব হোমিও ফার্মেসী, মুক্তিস্মরণী (চিটাগাংরোড), সিদ্ধিরগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, ঢাকা, বাংলাদেশ। ০১৯২০-৮৬৬ ৬১০(সকাল ১০টা থেকে রাত ৯টা, নামাজের সময় বিরতী)